Important Links







সোনালী লাইফ ইন্স্যুরেন্সের আইপিও অনুমোদন

Posted By : Admin    December 09, 2020   

পুঁজিবাজার থেকে প্রাথমিক গণপ্রস্তাবের (আইপিও) মাধ্যমে অর্থ উত্তোলনের অনুমোদন পেয়েছে বিমা কোম্পানি সোনালী লাইফ ইন্স্যুরেন্স। গতকাল নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) সভায় এ অনুমোদন দেয়া হয়েছে।

বিএসইসির নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র মোহাম্মদ রেজাউল করিম স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানা গেছে।

জানা গেছে, কোম্পানিটি পুঁজিবাজারে এক কোটি ৯০ লাখ সাধারণ শেয়ার ইস্যুর মাধ্যমে ১৯ কোটি টাকা উত্তোলন করবে। প্রতিটি শেয়ারের মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে ১০ টাকা। আইপিওর মাধ্যমে উত্তোলিত অর্থ দিয়ে কোম্পানিটি সরকারি ট্রেজারি বন্ড, ফিক্সড ডিপোজিট, শেয়ারবাজারে বিনিয়োগ এবং আইপিও খরচ খাতে ব্যয় করবে।

প্রতিষ্ঠানটির ৩১ ডিসেম্বর ২০১৯ সমাপ্ত অর্থবছরে নিরীক্ষিত আর্থিক বিবরণী অনুযায়ী ছাড়া নেট অ্যাসেট ভ্যালু ২৫ দশমিক ৪৭ টাকা (কোম্পানিটি কোনো সম্পদ পুনর্মূল্যায়ন করেনি) এবং লাইফ ইন্স্যুরেন্স ফান্ডের পরিমাণ ৯৫ কোটি ৩৩ লাখ টাকা।

এ প্রতিষ্ঠানটির ইস্যু ব্যবস্থাপনার দায়িত্বে নিয়োজিত রয়েছে আইসিবি ক্যাপিটাল ম্যানেজমেন্ট লিমিটেড এবং অগ্রণী ইক্যুইটি অ্যান্ড ইনভেস্টমেন্ট লিমিটেড।

উল্লেখ্য, ইলেকট্রনিক সাবসক্রিপশন সিস্টেমের মাধ্যমে কোম্পানিটির সাধারণ শেয়ার চাঁদা গ্রহণ শুরুর দিন থেকে পূর্ববর্তী ৫০ কার্যদিবস শেষে চাঁদা প্রদানে ইচ্ছুক যোগ্য বিনিয়োগকারীদের মধ্যে স্বীকৃত পেনশন ফান্ড এবং স্বীকৃত প্রভিডেন্ড ফান্ডের ক্ষেত্রে তালিকাভুক্ত সিকিউরিটিজে বাজারমূল্য ন্যূনতম ৫০ লাখ টাকা এবং অন্যান্য যোগ্য বিনিয়োগকারীর ক্ষেত্রে তালিকাভুক্ত সিকিউরিটিজে বাজারমূল্যে ন্যূনতম এক কোটি টাকা বিনিয়োগ থাকতে হবে বলে সভায় সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। তবে বিনিয়োগকারীদের স্বার্থ রক্ষার্থে চাঁদা গ্রহণের তারিখ ২০২০ সালের মার্চ মাসে নির্ধারিত হবে।

এদিকে গতকালের সভায় তালিকাভুক্ত ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংকের ৬০০ কোটি টাকার বন্ডের প্রস্তাব অনুমোদন করেছে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। জানা গেছে, বন্ডটির কুপন হার ছয় শতাংশ থেকে ১০ শতাংশ, যা সরকারি আর্থিক প্রতিষ্ঠান, মিউচ্যুয়াল ফান্ড, ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি, তালিকাভুক্ত ব্যাংক, সমবায় ব্যাংক, আঞ্চলিক ব্যাংক, সংগঠন, ট্রাস্ট, স্বায়ত্তশাসিত করপোরেশনসহ অন্যান্য যোগ্য বিনিয়োগকারীর প্রাইভেট প্লেসমেন্টের মাধ্যমে ইস্যু করা হবে।

অন্যদিকে গতকালের সভায় সিকিউরিটিজ-সংক্রান্ত আইন ও বিধিবিধান ভঙ্গের দায়ে দুটি সিকিউরিটিজ হাউসকে চার লাখ টাকা জরিমানার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

জানা গেছে, ইন্টারন্যাশনাল সিকিউরিটিজ কোম্পানি লিমিটেড (সিএসই ট্রেক নং-৯৬) এবং নর্থ ওয়েস্ট সিকিউরিটিজ লিমিটেড (সিএসই ট্রেক নং-১৯) সিকিউরিটিজ-সংক্রান্ত আইন ও বিধিবিধান ভঙ্গ করেছে। এজন্য উভয় প্রতিষ্ঠানকে দুই লাখ টাকা করে মোট চার লাখ টাকা জরিমানার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিএসইসি।

ডিসেম্বর ১০, ২০২০ ১২:২৫ এএম

শেয়ার বিজ নিউজ

Share on your Social Media